মেনু নির্বাচন করুন

শিরোনাম
মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা দিলেন চেয়ারম্যান জসিম উদ্দিন শাহিন
বিস্তারিত

মহান স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে নোয়াখালীর কবিরহাট উপজেলার ৭নং বাটইয়া ইউনিয়ন পরিষদের উদ্যোগে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা দিয়েছেনন নব-নির্বাচিত চেয়ারম্যান জসিম উদ্দিন শাহীন। রবিবার বাদ মাগরিব বাটইয়া ইউনিয়ন পরিষদ চত্তরে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ পরিবারের সদস্যদের রক্তের গুরুপ পরিক্ষা ও ইউনিয়ন পরিষদ ভবনে স্থাপিত মুজিব কর্ণারের উদ্ধোধনের মধ্য দিয়ে এ সংবর্ধনার শুভ সুচনা করা হয়। কবিরহাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ আতিকুল মামুনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, কবিরহাট উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক জহিরুল হক রায়হান। এসময় প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা ডেপুটি কমন্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল কাশেম। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, কবিরহাট থানার পরিদর্শক (তদন্ত) জয়নাল আবেদিন, বীর মুক্তিযুদ্ধা নজির আহাম্মদ ভুইয়া, মজিবুর রহমান, আবুল কাশেম, আব্দুল কাদের, বাটইয়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মো: হাফিজুর রহমান, মো: আলাউদ্দিন প্রমূখ। এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন, বীর মুক্তিযুদ্ধা আইউব আলি, আবুল কালাম, জয়নাল আবেদিন, মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড কবিরহাট উপজেলা শাখার সভাপতি স¤্রাট জাহাঙ্গীর, সহ-সভাপতি মোহাম্মদ উল্যা ভুইয়া সোহাগ, সাধারণ সম্পাদক ডা: শফিকুল ইসলাম স্বপন সহ অন্যান্য মুক্তিযুদ্ধা, শহীদ পরিবারের সদস্য সহ স্থানীয় আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ এবং সাধারণ মানুষের উপস্থিতিতে সম্পূর্ণ করা হয় এ সংবর্ধণা অনুষ্ঠান। অনুষ্ঠানে বক্তারা মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ পরিবারের সদস্যদের আতœত্যাগের বিভিন্ন দিক তুলে ধরে বলেন, জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানরা ১৯৭১ সালে নিজেদের বুকের তাজা রক্ত দিয়ে আমাদের দেশকে স্বাধীন না করলে আজকের এই দিনটি আমরা পেতামনা। তাই আমরা বাটইয়া ইউনিয়নের নব-নির্বাচিত চেয়ারম্যান সাবেক সফল ছাত্রলীগ নেতা জসিম উদ্দিন শাহীনের এ সংবর্ধনাকে স্বাগত জানিয়ে আগামী দিনে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ পরিবারের সদস্যদের প্রতি সকলকে সম্মানবোধ বজায় রেখে তাদেরকে সর্বোচ্চ সম্মান দেওয়ার আহবান জানান।  অনুষ্ঠান শেষে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ পরিবারের সদস্যদের আতœত্যাগের প্রতি সম্মান জানিয়ে মোট ৩৩ জনের হাতে সম্মাননা স্বারক তুলে দেওয়া হয়।

ডাউনলোড
প্রকাশের তারিখ
27/03/2022
আর্কাইভ তারিখ
30/09/2023